সুন্দরবনে প্রবেশ নিষিদ্ধ এলাকায় মাছ  ধরার অপরাধে নৌকা সহ ৪ জেলে আটক

শুক্রবার, ০২ অক্টোবর ২০২০, ১২:৪৫ পূর্বাহ্ন

সুন্দরবনে প্রবেশ নিষিদ্ধ এলাকায় মাছ  ধরার অপরাধে নৌকা সহ ৪ জেলে আটক

Sundari tree (Heritiera fomes) forest in Sunderbans river delta. The Sundarbans mangrove forest, one of the largest such forests in the world and it is an Unesco World Heritage Site. These mangrove forest/swamps are home to famous Royal Bengal tiger. During high tide, most of the area remains submerged in saline river water.

ওবায়দুল কবির সম্রাট :কয়রা(খুলনা)প্রতিনিধি:
সুন্দরবন খুলনা রেঞ্জের কাগাদোবেকী টহল ফাঁড়ির আওতাধিন কালিরচর প্রবেশ নিষিদ্ধ এলাকায় অবৈধ ভাবে মাছ ধরার অপরাধে জাল, নৌকা সহ ৪ জেলেকে আটক করেছে বন বিভাগ। জানা গেছে, খুলনা রেঞ্জের সহকারী বন সংরক্ষক (এসিএফ) মোঃ আবু সালেহ এর নির্দেশে খুলনা রেঞ্জের স্মার্ট টিম লিডার শেখ মোঃ আনিছুর রহমান ও কাগাদোবেকী টহল ফ ফাঁড়ির ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা টিপু মিয়া যৌথ
অভিযান চালিয়ে গত সোমবার বিকাল ৪টার দিকে কালির চর প্রবেশ নিষিদ্ধ এলাকায় মাছ
ধরার অপরাধে জাল, নৌকা সহ ৪ জেলেকে আটক করে। আটকৃতরা হলেন ইমাম হোসেন
গাজী (৪০), আব্দুল মোড়ল (৬১), মতিয়ার রহমান (৫৮) ও মেহের আলী (৪৫)। এদেরকে কয়রা উপজেলার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ব্যাপারে বন আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। সম্প্রতি খুলনা রেঞ্জের অধিনস্থ অভায়রণ্য এলাকায় কোন প্রকার জেলে বাওয়ালী সহ অন্যান্য লোকজন যাতে প্রবেশ করতে না পারে তার জন্য বন বিভাগের পক্ষে থেকে কোঠর নিরাপত্তার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। নীল কোমল টহল ফাঁড়ির ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ কামরুল ইসলাম বলেন, প্রবেশ নিষিদ্ধ এলাকায় কোন প্রকার জেলে বাওয়ালীরা প্রবেশ করতে না পারে তার জন্য দিনরাত টহল কার্যক্রম চলমান রয়েছে। ইতিমধ্যে অভায়রণ্য এলাকায় মাছ ধরার অপরাধে জাল, নৌকা, ইঞ্জিন চালিত ট্রলার সহ জেলেদের আটক করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। খুলনা রেঞ্জের সহকারী বন সংরক্ষক (এসিএফ) মোঃ আবু সালেহ বলেন, সুন্দরবনের প্রবেশ নিষিদ্ধ এলাকায় জেলে বাওয়ালীরা যাতে প্রবেশ করতে না পারে তার বিরুদ্ধে বন বিভাগের পক্ষে থেকে টহল কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media











© AMS Media Limited
Developed by: AMS IT BD