বরগুনায় স্ত্রীকে হত্যার চেষ্টা

বৃহস্পতিবার, ১৬ Jul ২০২০, ০৭:১৪ পূর্বাহ্ন

বরগুনায় স্ত্রীকে হত্যার চেষ্টা

খলিফা মাইনুল : তালাক দেয়া ছোট বউকে পূনরায় বিয়ে করে গড়ে তোলার জন্য বড় বউকে গলা টিপে হত্যা করার চেষ্টা করেছে সন্ত্রাসী স্বামী মাসুদ হাওলাদার । তালাকপ্রাপ্ত ছোট বউকে পুনরায় বিয়ে করে ঘরে তোলার জন্য এমন কাণ্ড ঘটিয়েছে সন্ত্রাসী চরিত্রহীন স্বামী। আহত স্ত্রী খালেদা বেগম বর্তমানে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে ।

 

গত বৃহস্পতিবার বিকাল ৩ টায় বরগুনা জেলার পাথরঘাটা থানাধীন হোগলাপাশা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে । আহত স্ত্রী খালেদা বেগম জানান, দীর্ঘ কয়েক বছর আগে ওই উপজেলার হোগলাপাশা গ্রামের খলিল মাওলানার ছেলে মাসুদ হাওলাদারের সাথে সামাজিকভাবে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হই। বিয়ের কিছু দিন পরে জানতে পারি ওই গ্রামের বাদলের মেয়ে মর্জিনার সাথে আমার স্বামীর অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে এবং কিছুদিন পর গোপনে মর্জিনাকে সে বিয়েও করে। ঘটনাটি জানাজানি হলে স্থানীয় সালিস মীমাংসার মাধ্যমে কাবিনের ১ লক্ষ টাকা মরজিনাকে দিয়ে তালাক দেয়া হয় ।

 

সেই তালাকের এক লক্ষ টাকা সম্পূন্ন আমার বাবা আইয়ুব আলী পরিশোধ করেন কিন্তু ছাড়াছাড়ি হলেও তাদের ভিতর অবৈধ সম্পর্ক বন্ধ হয় না । এ নিয়ে আমি কিছু বললেই আমাকে মারধর এবং হত্যা করার হুমকি দেয়। আমাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে সেই ছোট্ট বউকে নিয়ে সংসার করার চেষ্টা করে । ঘটনার দিন যখন হত্যার উদ্দেশ্যে আমার উপর ঝাপিয়ে তলপেটে লাথি মারে ফলে পেটে থাকা ৬ মাসের বাচ্চা মারা যায়। পড়ে আমার চিৎকার শুনে স্থানীয়রা দৌড়ে আসলে সন্ত্রাসী স্বামী পালিয়ে যায় পরে আহতকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা খুবই আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে বরিশাল শেবাচিমে হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

 

স্থানীয়রা আরো জানান, চরিত্রহীন মাসুদ হাওলাদার তার চাচাতো ভাবি হালিমার সাথেও অবৈধ সম্পর্ক ছিল এই সম্পর্কের কথা জানতে পেরে তার চাচাতো ভাই নজরুল আত্মহত্যা করে। এই মাসুদ এলাকায় লম্পট, চরিত্রহীন,সন্ত্রাসী বলেও জানা গেছে । এ বিষয় নিয়ে লম্পট মাসুদের বিরুদ্ধে পাথরঘাটা থানায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে বলে ভুক্তভোগী স্ত্রী খালেদার বাবা আইয়ুব আলী জানান ।

Please Share This Post in Your Social Media










© AMS Media Limited
Developed by: AMS IT BD