Connect with us

এক্সক্লুসিভ নিউজ

জল নিমগ্ন সরকারি বিএম কলেজ, শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের দূর্ভোগ

Published

on

ডেস্ক রিপোর্ট: একটু ভারী বৃষ্টিপাত হলেই জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয় একসময়কার দক্ষিন বাংলার অক্সফোর্ডখ্যাত সরকারি বিএম কলেজে। ক্যাম্পাস ঘুরে সরেজমিনে দেখা গেছে ক্যাম্পাসের কবি জীবনানন্দ দাস চত্বর থেকে, মুক্তমঞ্চ, ক্যান্টিন, সন্ধানী, সংস্কৃতি পরিষদ, অডিটোরিয়ামের রাস্তা ডুবে যায় হাটুজলে। এসময় ক্যাম্পাসের মধ্যে চলাফেরা করা একরম দুরুহু হয়ে পরে শিক্ষক শিক্ষার্থীদের জন্য। পানিতে হাটতে গিয়ে কেউ কেউ পরে গিয়ে আহতও হয়েছেন এমন খবরও পাওয়া গেছে। তবে বছরের পর বছর ধরে এমন ভোগান্তির শিকার হয়ে আসলেও সমস্যার সংকটে উদ্যোগ নেননি ছাত্রনেতা থেকে শুরু করে শিক্ষকনেতাদের কেউ।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন শিক্ষার্থী অভিযোগ করে বলেন, সেই ফার্স্ট ইয়ার থেকে দেখে আসছি, শুধু বর্ষাকালেই না, একটু ভারী বৃষ্টিপাত হলেও পানিতে ডুবে থাকে গোটা বিএম কলেজ ক্যাম্পাস, এক যায়গা থেকে অন্য জায়গায় যাওয়ার কোনো উপায় নেই। আমরা যেমন ভোগান্তিতে পরি, তেমন শিক্ষকরাও ক্লাস নিতে গিয়ে পরেন ভোগান্তিতে। তবে বছরের পর বছর এমন জলাবদ্ধতা সহ্য করতে করতে এসেই ফাইনাল ইয়ারে পৌঁছেছি, তবে এই জলাবদ্ধতার যে সংকট তা নিরসন হয়নি। আর কবে যে হবে সেখবর কেউ জানেনা এমন মন্তব্য করে হতাশা প্রকাশের সঙ্গে ক্ষোভ ঝাড়েন কয়েকজন সাধারণ শিক্ষার্থী। এব্যাপারে জানতে চাইলে সরকারি বিএম কলেজের উপাধ্যাক্ষ ড. এ এস কাইউম উদ্দিন আহমেদ বলেন, জলাবদ্ধতার সমস্যা শুধুমাত্র বিএম কলেজেই নয়, এটা গোটা বরিশাল শহরের একটা সমস্যা। ভারী বৃষ্টিপাত, জোয়ারের পানিতে এখন গোটা বরিশাল শহর নিমজ্জিত হয়, স্বাভাবিকভাবে বিএম কলেজেও সেই প্রভাব পরে। তবে হ্যা, পূর্বের তুলনায় জলাবদ্ধতার সমস্যা ৮০ শতাংশ সমাধান হয়েছে। আমরা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি যেন জলাবদ্ধতার সংকট শূন্যের কোটায় নামিয়ে আনা যায়।

Continue Reading
Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: